• শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০২:৫৮ অপরাহ্ন
  • English Version | Epaper
নোটিশ :
Wellcome to our website...

চট্রগ্রামের হালিশহর স্কুলের প্রধান শিক্ষকের নামে চট্রগ্রাম বার্তার মিথ্যা অপবাদ ও অপপ্রচার

প্রথমসংবাদ ডেক্স : / ২৪ বার
আপডেটের সময় : সোমবার, ১৭ আগস্ট, ২০২০

নিজস্ব প্রতিনিধি ঃ সম্প্রতি “চট্টগ্রাম বার্তা” নামক একটি ভুঁইফোড় ফেসবুক পেজ থেকে চট্টগ্রামের হালিশহরস্থ গরীবে নেওয়াজ উচ্চ বিদ্যালয় এর প্রধান শিক্ষকের নামে ভিত্তিহীন মিথ্যা অপবাদ দিয়ে অপপ্রচার চালনা করা হচ্ছে।

এ প্রসঙ্গে বলেন, বিগত ২৩ মে সরকার ঘোষিত করোনার সাধারণ ছুটি, যান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা, পবিত্র রমজান ও ঈদুল ফিতরের ছুটি চলমান অবস্থায় পবিত্র ঈদের ১ দিন আগে বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটি মিথ্যা অভিযোগ এনে নিয়মবহির্ভূতভাবে ৩ দিনের নোটিশে সাময়িক বরখাস্ত দেখিয়ে প্রধান শিক্ষককে ইমেইল প্রেরণ করে।
একইসাথে করোনায় চলমান সংকটের মধ্যে এপ্রিল মাস থেকেই বিনা নোটিশে তার প্রাতিষ্ঠানিক বেতন ভাতাদি বন্ধ করে দেয় এবং প্রধান শিক্ষকের অফিসে তালা লাগিয়ে স্কুল জবরদখলে নিয়ে নেয়।

২৭ মে উক্ত ম্যানেজিং কমিটির মেয়াদ শেষ হওয়ার পরেও তারা কারো তোয়াক্কা না করে শক্তি প্রদর্শন করে স্কুলে অবৈধভাবে প্রশাসনিক কার্যক্রম চালিয়ে যেতে থাকে।

এরই প্রেক্ষিতে প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম হালিশহর থানায় জিডি করেন। অতঃপর স্কুলে অফিসে প্রবেশে তাকে বাধা দিলে তিনি ন্যায়বিচার পাওয়ার আশায় চট্টগ্রাম দেওয়ানি আদলতে একটি অপর মামলা দায়ের করেন।

উক্ত ম্যানেজিং কমিটি মেয়াদ শেষ হওয়ার পরও স্কুলের সহকারী প্রধান শিক্ষক, অফিস সহকারী ও কতিপয় শিক্ষকের সহযোগিতায় সম্পূর্ণ অবৈধভাবে স্কুল দখল করে রেখেছে এবং স্কুলের ছাত্রদের কাছ থেকে বিভিন্ন অজুহাতে টাকা উত্তোলন করছে।
একইসাথে একটি মামলা চলমান অবস্থাতে উক্ত মামলার পূর্ণাঙ্গ রায় আসার আগে তারা নানাভাবে প্রধান শিক্ষকের নামে বিভিন্ন মাধ্যমে অপপ্রচার চালিয়ে তাকে হেনস্তা করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।

একটা ভুঁইফোড় ফেসবুক পেজের মূর্খতা ভরা লেখা আর কতিপয় ব্যক্তির অপপ্রচারণায় কান দেয়ার আগে যাচাই-বাছাই করতে শিখুন।


এ জাতীয় আরো সংবাদ