শিরোনাম :
সেনবাগে কাবিলপুর একতা সমাজ সংঘের উদ্দ্যোগে ইফতার পার্টি ও ঈদ বস্র উপহার বিতরণ সেনবাগে সৈয়দ হারুন ফাউন্ডেশনের পক্ষ হতে ৪০০ পরিবারকে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ সেনবাগে সেলিম উদ্দিন কাজল এর উদ্দ্যোগে দেশবাসীর জন্য দোয়াও মেজবানী অনুষ্ঠিত সেনবাগে কাবিলমিয়া ফাউন্ডেশনের উদ্দ্যোগে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ সেনবাগে অসহায় গরীবের মাঝে প্যানেল চেয়ারম্যান স্বপনের ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ ফরিদপুর জেলা পুলিশের প্রেস ব্রিফিং অনুষ্ঠিত মীনার স্বপ্নপূরণের সহযাত্রী ফরিদপুর জেলা প্রশাসন বৃহত্তর গোয়ালচামট বাসীর পক্ষ থেকে শান্তিনিবাসে ইফতার বিতরণ সেনবাগে পৌরমেয়র প্রার্থী সাইফুল ইসলাম বাবুর করোনাকালীন খাদ্য সামগ্রী বিতরণ সচেতনতা মুলক স্টিকার ও মাস্ক বিতরণ করলো জনপ্রিয় সেচ্ছাসেবী সংঘঠন ত্রিশাল হেল্পলাইন
নোটিশ :
Wellcome to our website...

কড়িহাটি উচ্চ বিদ্যালয়ের পুনর্মিলনী

প্রথমসংবাদ ডেক্স : / ২৫৫ বার
আপডেটের সময় : রবিবার, ২৪ জানুয়ারী, ২০২১

নিজস্ব প্রতিনিধি: ঐতিহ্যবাহী কড়িহাটি উচ্চ বিদ্যালয়ের “পুর্নমিলনী অনুষ্ঠান আজ দুপুর ১২ টায় কুরআন তেলওয়াতের মাধ্যমে শুরু হয়। অনুষ্ঠান আয়োজন করে এস.এস.সি ব্যাচ ২০১৪ ইং।

কুরআন তেলওয়াতের পর জাতীয় সংগীত পরিবেশন এবং স্কুলের সিনিয়র শিক্ষক মরহুম মিয়া রবিউল আলম চৌধুরী স্যারের জন্য ১ মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। এরপর উদ্বোধনী অংশে প্রধান অতিথি,শিক্ষকবৃন্দ,ম্যানেজিং কমিটির সদস্যদের ফুল দিয়ে বরন করা হয়।

উদ্বোধনী পর্ব শেষ হলে শুরু হয় স্মৃতিকথা।বিদ্যালয়ের বর্তমান সভাপতি মোয়াজ্জেম হোসেন বেল্লাল, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি খন্দকার জাহাঙ্গীর আলম দুলাল, প্রধান শিক্ষক মোঃ মনির হোসেন (বিএসসি), ম্যানেজিং কমিটির সদস্য এবং সিনিয়র শিক্ষকবৃন্দ তাদের বক্তব্যে বিভিন্ন স্মৃতিচারণমূলক ঘটনা বলেন। তখন আবেগঘন মূহুর্তের সৃষ্টি হয়।
২০১২ থেকে ২০১৭ইং পর্যন্ত প্রতিটি ব্যাচের শিক্ষার্থীদের মধ্য থেকে একজন এসে স্কুল জীবনের নানান মজার ঘটনা বলা শুরু করে।
একজন প্রাক্তন ছাত্র তাঁর বক্তব্যে বলছিল, ‘জানেন এমনও বন্ধু খুঁজে পেলাম যার সাথে দীর্ঘ ১০ বছর পর দেখা হলো। এই আবেগ ধরে রাখতে পারছি না। এভাবেই পুনর্মিলনী স্থল ভরে ওঠে উচ্ছাস ও আবেগে। ’

বন্ধু বন্ধুকে জড়িয়ে ধরছে। শিক্ষক তার শিক্ষার্থীদের জড়িয়ে ধরছেন। কেউ কেউ সালাম করছে প্রিয় শিক্ষকদের। এমন দৃশ্য একমাত্র পুনর্মিলনীতেই সম্ভব।
পরবর্তীতে সভাপতি,শিক্ষক ও ম্যানেজিং কমিটির সদস্যদের সম্মাননা স্মারক প্রদান করেন প্রাক্তন শিক্ষার্থীরা।

অনুষ্ঠানে থেমে থেমে হয়েছে নাচ, গান, স্মৃতিকথা। আর পুরাণ বন্ধুদের পেয়ে আড্ডা তো ছিলই। গোল হয়ে বসে অনেককে দলবেঁধে গানও গাইতে দেখা যাচ্ছিল। তারা বলছিল, ‘এতোদিন পর মনে হচ্ছে আবার স্কুল জীবনটা ফিরে পেয়েছি।

সবশেষে কুপন ড্র এর মাধ্যমে বিজয়ী ১০ জনকে দেওয়া হয় আর্কষনীয় পুরষ্কার। এভাবেই আবেগ উচ্ছাসের মধ্য দিয়া পুনর্মিলনীর সমাপ্তি টানা হয়।


এ জাতীয় আরো সংবাদ